প্রিয় শিল্পীদের নতুন গান

Filed under: ফিচার,সময়ের লাইফস্টাইল |

 

Fahmida[1]

‘গান যে ভালোবাসে না, সে নাকি মানুষ খুন করতে পারে!’ আসলে গান ভালোবাসে না এমন মানুষ বুঝিবা খুঁজে বের করতে বেশ কষ্ট হবে। আমরা সবাই গান ভালোবাসি। কেউ শুনতে ভালোবাসি। কেউ গাইতে ভালোবাসি।

আর স্বাভাবিকভাবেই আমরা যারা দেশের বাইরে বসবাস করে থাকি দেশীয় সঙ্গীত আমাদের আরো প্রবলভাবে আকর্ষণ করে থাকে। অনেকেরই মুখে এবং বুকে সব সময়ই থাকে বাংলা গান।

অনেকেই ঘরে কিংবা গাড়িতে আমরা বাজিয়ে থাকি প্রিয় শিল্পীদের গাওয়া গান।

বাংলাদেশ থেকে প্রকাশিত শিল্পীদের নতুন গানের সিডি নানাভাবে সংগ্রহ করে থাকি। অবশ্য প্রবাসে এখন বাংলাদেশী শিল্পীদের সদ্য প্রকাশিত গানের সিডিটাও মেলে হাতের কাছেই কোনো গ্রোসারী শপ অথবা সিডির দোকানে। কেউ কেউ আবার দেশ থেকেও কারো মাধ্যমে পছন্দের গান ও প্রিয় শিল্পীদের গানের সিডি আনিয়ে থাকি।

তবে আমরা কি সকলেই জানি কোন শিল্পীর কোন সিডিটা কবে বেরুলো? জানলে সেটা সংগ্রহ করা সহজ হয়। সময়ের কথা’র গান প্রিয় পাঠকদের জানার সে পথটা সহজ করে দিতে আমরা নিচে এবারের ঈদে প্রকাশিত বাংলাদেশের সঙ্গীত শিল্পীদের প্রকাশিত কিছু সিডির সারসংক্ষেপ তুলে ধরা হলো-

 

 

 

ফাহমিদা নবীর ‘ইচ্ছে হয়’

fahএবারের ঈদে ফাহমিদা নবীর নতুন একক `ইচ্ছে হয়` প্রকাশ করেছে লেজার ভিশন। সবগুলো গানের কথা লিখেছেন জুলফিকার রাসেল। এতে মোট গান রয়েছে আটটি। চারটি করে গানের সুর করেছেন দুই ভাই- নকীব খান ও পিলু খান। ৩০ বছরেরও বেশি সময় ধরে একসঙ্গে মিউজিক করলেও এবারই প্রথম কোনো পূর্ণাঙ্গ অ্যালবামের সুর করলেন তাঁরা। অ্যালবামের একটি দ্বৈত গানে ফাহমিদা নবীর সঙ্গে কণ্ঠ দিয়েছেন বাপ্পা মজুমদার।

 

আসিফের ‘এক্স প্রেম’

asiসঙ্গীত থেকে অনেকদিন দূরে থাকার পর এ অ্যালবামটি দিয়েই আবার সংগীতাঙ্গনে ফিরেছেন জনপ্রিয় সঙ্গীত শিল্পী আসিফ। এমআইবি-এর প্রকাশনায় আসিফের ২৯তম একক `এক্স প্রেম`। এতে গান রয়েছে ১৪টি। এর মধ্যে `শোনো কোনো একদিন` গানটি হেমন্ত মুখোপাধ্যায়ের। গানটির কথা ও সুর সলিল চৌধুরীর।  গানগুলোর শিরোনাম `চাঁদবতী`, `বোকা প্রেমিক`, `প্রতিশোধ`, `মন ফেরানো গেল না`, `কার প্রেমে পড়বে`, `এক্স প্রেম`, `রং তুলি`, `শোনো কোনো একদিন`, `কী চাই তোমার`, `সাদা কালো প্রেম`, `অন্য যুবক`, `নেই ব্যবধান`, `পিছুটান` ও `সখা`।

 

আরফিন রুমির ‘পরজনমে’

rumiসিডি চয়েসের ব্যানারে প্রকাশিত হয়েছে আরফিন রুমির চতুর্থ একক অ্যালবাম `পর জনমে`। এতে মোট গান রয়েছে ১১টি। এতে দ্বৈত গানও রয়েছে পাঁচটি। তাঁর সঙ্গে কণ্ঠ দিয়েছেন খেয়া, পড়শী, পূজা ও নওমী। ৯টি গানের সুর ও সব গানের কথা ও সংগীত রুমির নিজেরই। একটি করে গানের সুর করেছেন কাজী শুভ ও ইমরান।

 

বালামের ‘ভূবন’

জনপ্রিয় সংগীতশিল্পী বালামের তিন বছর পর প্রকাশিত হলো চতুর্থ একক অ্যালবাম ‘ভূবন’। বালামের সর্বশেষ একক অ্যালবাম ‘বালাম-থ্রি’ প্রকাশিত হয় ২০১০ সালের শুরুতে।  এবারই প্রথম নিজের নামের বাইরে এসে অ্যালবামের নাম দিলেন জনপ্রিয় এ গায়ক, সুরকার ও সংগীত পরিচালক। ঈগল মিউজিকের ব্যানারে প্রকাশিত নতুন এ অ্যালবামটিতে মোট গান থাকছে দশটি। গানগুলোর শিরোনাম ‘ও আকাশ’, ‘অচিন’, ‘জানলে না’, ‘একটু শোনো না’, ‘অনুতাপ’, ‘লুকোচুরি-২’, ‘স্বপ্ন’, ‘দিও না ফিরিয়ে’, ‘ডানা মেলে’ এবং ‘দিন চলে যায়’।

 

 

শফিক তুহিনের ‘পবিত্র প্রেম’

ঈগল মিউজিকের ব্যানারে ঈদে বাজারে এসেছে শফিক তুহিনের একক ‘পবিত্র প্রেম’। গায়ক হিসেবে শফিক তুহিনের এটি তৃতীয় একক। দুটি দ্বৈতসহ ৯টি গান রয়েছে এ অ্যালবামে। কণ্ঠ দেওয়ার পাশাপাশি সব গানেরই কথা ও সুর করেছেন তুহিন নিজেই। তিনটি গানের সংগীতায়োজন করেছেন বাপ্পা মুজমদার ছয়টি করেছেন রাফি। দ্বৈত গান দুটির একটিতে তুহিনের সঙ্গে কণ্ঠ দিয়েছেন ন্যান্সি। অন্যটিতে নবীন গায়িকা লাবণ্য কণ্ঠ দিয়েছেন। কথার ওপর আমি বেশ জোর দিয়েছি।`

 ঈদে গান

প্রিন্স মাহমুদের ‘নিমন্ত্রণ’

অনেক জনপ্রিয় গানের গীতিকার ও সুরকার প্রিন্স মাহমুদ শ্রোতাদের জন্য উপহার হিসেবে এনেছেন অ্যালবাম `নিমন্ত্রণ`। একক, দ্বৈত ও মিক্সড মিলিয়ে প্রিন্স মাহমুদের এটি ৪০তম অ্যালবাম। জি সিরিজ-এর ব্যানারে এ অ্যালবামে দুটি দ্বৈতসহ মোট গান রয়েছে ৯টি। কণ্ঠ দিয়েছেন বাপ্পা মজুমদার, তপু, তাহসান, এলিটা, মাহাদী, ন্যান্সি, শুভ, পলাশ ও অরণ্য। একটি করে দ্বৈত গানে কণ্ঠ দিয়েছেন তপু ও ন্যান্সি এবং মাহাদী ও এলিটা। রয়েছে ন্যান্সির কণ্ঠে `ও প্রজন্ম` শিরোনামে একটি দেশের গানও।

গানগুলোর কথা লিখেছেন শহীদুল্লাহ ফরায়জী, প্রদীপ সাহা, রাজীব আহমেদ ও হাসান জান। সুর করেছেন আলতাফ সিদ্দিকী, মনোয়ার হোসেন টুটুল, বাউল লতিফ শাহ্, নাজির মাহমুদ, জাহিদ বাশার পংকজ ও রাজেশ।

 

মিলন মাহমুদের ‘আলিঙ্গন’

প্রথমবারের মতো লেজার ভিশনের ব্যানারে অ্যালবাম প্রকাশ করলেন মিলন মাহমুদ। নাম `আলিঙ্গন`। এতে গান রয়েছে আটটি। কথা ও সুর করেছেন শিল্পী নিজেই। সংগীতায়োজনে সচি শামস ও বনি আহমেদ।

 

তপুর ‘আর তোমাকে’

তপুর তৃতীয় একক `আর তোমাকে` নিয়ে আসছে জি সিরিজ। এতে গান রয়েছে  ১০টি। ৯টির কথা এবং সব গানের সুর ও সংগীত করেছেন তপু। এবারই প্রথম নিজের একক অ্যালবামের সংগীত করেছেন এই গায়ক।

 

শহীদের ‘নীল ছোঁয়া’

সিডি চয়েসের ব্যানারে শহীদের তৃতীয় একক `নীল ছোঁয়া` বাজারে এসেছে । এ অ্যালবামে নতুন সাতটি গানের সঙ্গে পুরনো ৬টি গান বোনাস ট্র্যাক হিসেবে দিয়েছেন তিনি। নতুন গানগুলোর চারটি দ্বৈত। এগুলোতে তাঁর সঙ্গে কণ্ঠ দিয়েছেন শুভমিতা, জুলি, কণা ও বাঁধন। গানগুলোর সুর ও সংগীত করেছেন বালাম, জে কে, বেলাল খান, ইমরান ও রাফি।

 

পড়শীর ‘পড়শী-থ্রি’

পড়শীর তৃতীয় একক `পড়শী-থ্রি`। জি সিরিজের ব্যানারে প্রকাশ পেয়েছে অ্যালবামটি। নানা কারণে পড়শীর এবারের অ্যালবামটি আকর্ষণীয়। অ্যালবামে পড়শীর সঙ্গে একটি গান গেয়েছেন কলকাতার দেব সেন। কলকাতার অম্লান-পুপুন জুটিও একটি গান করেছে এতে। একটি হিন্দি গানও আছে। এতে তাঁর সঙ্গে কণ্ঠ দিয়েছেন ইমরান।

সুরকার ও সংগীত পরিচালক হিসেবে আরো রয়েছেন বাপ্পা মজুমদার, অদিত, আরফিন রুমি, জুয়েল মোর্শেদ ও নাদিম।

 

শিরোনামহীনের ‘শিরোনামহীন’

ব্যান্ডদলের নামেই বাজারে এসেছে শিরোনামহীনের পঞ্চম অ্যালবাম ‘শিরোনামহীন’। এছাড়া ২ আগস্ট তাদের অ্যালবামের ‘আবার হাসিমুখ’ গানটির মিউজিক ভিডিও প্রকাশ করে। এটি ইতিমধ্যে এনটিভিতে প্রচার হচ্ছে।

নতুন এ অ্যালবামে গান থাকছে মোট ১০টি। গানগুলোর শিরোনাম হলো- ‘আবার হাসিমুখ’, ‘আহত কিছু গল্প’, ‘কিছুকথা’, ‘বৃষ্টিকাব্য’, ‘পরী’, ‘মিছিল’, ‘চিঠি’, ‘শন শন, ‘যদিও কাশবন’, ‘আতাতায়ী’। আর এ বিশেষ অডিও সিডির মূল্য রাখা হয়েছে ১৫০ টাকা।

 

চিরকুটের ‘জাদুরশহর’

জনপ্রিয় ব্যান্ডদল চিরকুট তিন বছর পর নিজেদের দ্বিতীয় অ্যালবাম নিয়ে বাজারে আনল। অ্যালবামের নাম ‘জাদুর শহর’। ১২টি গান নিয়ে অ্যালবামটি প্রকাশ করছে জি সিরিজ। এর মধ্যে ১০টি মৌলিক ও দুটি কাভার সং।

 

রিংকুর ‘বাউল বেশে রবী ঠাকুর’

সংগীতশিল্পী রিংকু প্রথম বারের মত রবীন্দ্র সংগীত গাইলেন। এবার ঈদকে সামনে রেখে বাজারে এসেছে তার একক `বাউল বেশে রবী ঠাকুর`। অ্যালবামটি প্রকাশ করেছে সম্পর্ক। এতে ছয়টি রবীন্দ্র সংগীত রয়েছে।

 

 

সময়ের কথায় প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।