আবার মাইকেল-ক্যাথরিন

Filed under: ফিচার,বিনোদন |

catherine[1]

তারা আবারো সচেষ্ট হয়েছেন নিজেদের মধ্য সম্পর্কটা টিকিয়ে রাখার। আবারও স্বপ্ন গাঁথতে এবং বাঁধতে শুরু করেছেন। অতীতকে আস্তাকূড়ে নিক্ষেপ করে নতুন করে হাতে হাত রেখে সামনে এগিয়ে চলার একটা প্রত্যয় যেনো তাদের মাঝে আবার মাথা চাড়া দিয়ে উঠছে। আর সে লক্ষ্যকে সামনে রেখেই আবার মিলিত হয়েছেন হলিউডি দম্পতি মাইকেল ডগলাস এবং ক্যাথরিন জেটা জোন্স।

সংবাদ মাধ্যম থেকে জানা যায়, নিজের পারিবারিক বাড়িতে ফিরে গেছেন মাইকেল ডগলাস; স্ত্রীর সঙ্গে তার সম্পর্ককে নতুন একটি সুযোগ দেওয়ার কথাই এখন ভাবছেন তিনি।

উল্লেখ করা যেতে পারে গত অগাস্ট মাসে নিজেদের ১৩ বছরের বিবাহিত জীবনের ইতি টানার ঘোষণা দিয়ে মিডিয়াতে হৈচৈ ফেলে দেন ক্যাথরিন। এত তাদের দুনিয়াব্যাপী ভক্তকুল বেশ আহত হয়। তবে তাদের ডিভোর্সের বিষয়টি সম্পূর্ণ ভিত্তিহীন বলে জানান তার স্বামী মাইকেল। স্ত্রীর সঙ্গে নিজের দূরত্বকে ‘সাময়িক’ বলেই তখন অভিহিত করেছিলেন তিনি।

তবে অনেকদিন তারা একে অপরের সান্নিধ্য থেকে দূরে সরে ছিলেন।

অতি সম্প্রতি তাদের একত্রে বসবাসের ব্যাপারটা আবার তাদের তুলে এনেছে আলোচনার শীর্ষে। যুক্তরাজ্যের পত্রিকা ‘দ্য সান’ দাবি করেছে, নিউ ইয়র্কে অবস্থিত নিজের পারিবারিক বাড়িতে আবারও বসবাস শুরু করেছেন মাইকেল। যেখানে তাদের দুই সন্তান ডিলান এবং ক্যারিসের সঙ্গে থাকেন ক্যাথরিন।

এক সূত্রের বরাতে ‘সান’ পত্রিকা জানিয়েছে, ক্যাথরিনের কাছে নিজেদের সম্পর্ককে আরও একবার সুযোগ দেওয়ার প্রস্তাব দিয়েছেন মাইকেল, আর এতে রাজি হয়েছেন ক্যাথরিন। তাদের এই পুনর্মিলন শুধুমাত্র তাদের সন্তানদের জন্যই হচ্ছে না, তারা নিজেদের ইচ্ছাতেই পদক্ষেপটি নিয়েছেন।

এই ঘটনার পর ২৯ সেপ্টেম্বর নিউ ইয়র্কে একটি অনুষ্ঠানে বিয়ের আংটি দেখা গেছে ক্যাথরিনের আঙুলে, যা এতদিন ধরে পড়েননি তিনি।

‘নিউ ইয়র্ক ড্যান্স অ্যালিয়ান্স ফাউন্ডেশন গালা’ নামের এই অনুষ্ঠানে ক্যাথরিনকে ‘অ্যাম্বাসেডর অফ আর্টস’ পুরস্কারে ভূষিত করা হয়।

নিজেদের সম্পর্ক নিয়ে অনেকদিন ধরেই সমস্যার সম্মুখীন হচ্ছিলেন মাইকেল-ক্যাথরিন। মাইকেলের কণ্ঠনালীর ক্যান্সার নিয়ে ওঠা বিতর্ক,আবার ক্যাথরিনের বায়োপলার ডিসঅর্ডারের কারণে নিজেদের দাম্পত্য জীবনে সমস্যার সম্মুখীন হতে হয় এই দম্পতিকে।

তবে আর যাই বলা হোক না কেনো আপাতত এই দম্পত্তির ভক্তদের জন্য সুখের সংবাদটি হচ্ছে, তাদের পছন্দের মানুষ দু’জন আবার একত্রে বসবাস শুরু করেছেন।

-নূরুল আলম

সময়ের কথায় প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।